কি জন্য কালিকাপ্রসাদের গাড়ি দুর্ঘটনা? চালকের এক্সক্লুসিভ বক্তব্য ক্লিক করে শুনুন

সঙ্গীতশিল্পী কালিকাপ্রসাদ ভট্টাচার্যর গাড়ি দুর্ঘটনার কারণ নিয়ে তৈরি হয়েছে ধোঁয়াশা। পুলিশ এবং ফরেন্সিক বিশেষজ্ঞদের ধারণা, দুর্গাপুর এক্সপ্রেসওয়ের উপরে ঘণ্টায় প্রায় ১০০ কিলোমিটারের বেশি গতিবেগে ছিল ইনোভা গাড়িটি্ ।চালক ঘুমিয়ে পড়ার জন্যই ভয়াবহ এই দুর্ঘটনা বলে তারা মনে করেন । প্রাথমিক তদন্তে উঠে এসেছে, প্রথমে রাস্তার ধারে রেলিংয়ে ঘষা খেতে থাকে গাড়িটি। এর পরে কালভার্টে ধাক্কা মারে। তখন গাড়ির সামনের একটি চাকা খুলে যায়। এরপর গাড়িটি রেলিং টপকে নয়ানজুলিতে পড়ে যায়।

যদিও গাড়ির চালক এদিন দাবি করেন, একটি ট্রাক তাঁদের গাড়িটিকে ওভারটেক করতে গিয়ে  গাড়ির সামনের দিকে ধাক্কা মারে। এই কারণেই নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাড়িটি  নীচের নয়ানজুলিতে গিয়ে পড়ে।গাড়ির গতি  ঘণ্টায় ৫০ থেকে ৬০ কিলোমিটারে ছিল বলে চালক দাবি করেন।সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি জানিয়েছেন, গাড়ির সামনের আসনে বসে ছিলেন কালিকাপ্রসাদ। দুর্ঘটনার তাঁকে বাঁচানোর জন্য তিনিই অনেকক্ষণ কালিকাপ্রসাদের বুকে পাম্প করেছিলেন বলে জানান। যদিও চালকের এই দাবি মানতে নারাজ পুলিশ।

***প্রতি মুহূর্তে ‘হাইলাইস বেঙ্গল’ এর নিউজ আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজ Like  করুন।

শুনুন কালিকাপ্রসাদের গাড়ির চালক কি বললেন?