মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের আগাম জয়ের আনন্দ। কর্মীরা কি করে ফেললেন দেখুন।

নন্দীগ্রামে মমতা না শুভেন্দু এই নিয়ে চর্চা তুঙ্গে। দুই প্রার্থীও দাবি করছেন তারাই জিতবেন। তবে এবার জয়ের আনন্দে মিষ্টিমুখ শুরু হয়ে গেল।

নির্বাচনে নন্দীগ্রাম কেন্দ্র থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের জয় নিশ্চিত এই আনন্দে তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা-কর্মীরা একে অপরকে মিষ্টি মুখ করে উৎসবে মাতলেন । এই ছবি ধরা পড়ল পূর্ব বর্ধমানের কাটোয়া।

কাটোয়া শহরে তৃণমূলের নির্বাচনী কার্যালয়ে হাজির হয় তৃণমূলের কয়েক শো কর্মী। হাজির ছিলেন তৃণমূল প্রার্থী রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায় সহ আরো অনেক নেতাও। খেলা হবে খেলা হবে,ভাঙা পায়ে খেলা হবে স্লোগানে সরগরম হয়ে ওঠে কার্যালয় কক্ষ। আনা হয়েছিল প্রচুর মিষ্টি। কর্মীরা একে অপরকে মিষ্টি মুখ করিয়ে আনন্দে মেতে ওঠে। যুব কর্মীরা জানিয়েছেন নন্দীগ্রাম থেকে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জয়লাভ করছেন। তাই আমরা আগাম মিষ্টি মুখ করলাম।

কাটোয়ার তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী রবীন্দ্রনাথ চট্টোপাধ্যায় জানিয়েছেন, বিভিন্ন সংস্থার সূত্র থেকে জানা গেছে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জিতছেন। তাই কর্মীরা দাবি জানিয়েছিল মিষ্টি খাওয়াতে। সেকারণেই মিষ্টি খাওয়ানো হয়েছে সবাইকে।

বিজেপি জেলা সভাপতি কৃষ্ণ ঘোষ মিষ্টিমুখের বিষয়কে কটাক্ষ করে বলেন, হাঁড়ছে জেনে নিজেদের মনের কষ্ট দূর করতে মিষ্টি খাচ্ছে তারা।

তবে যাই হোক। শেষ হাসি কে হাসে দেখার জন্য অপেক্ষা ২ মে পর্যন্ত।