রক্ষাকালী মায়ের সঙ্গে আরও প্রায় ৫০০ কালী মূর্তির পুজো হয় এখান। কেন? ক্লিক করে পড়ুন

নিজস্ব প্রতিনিধি,বালুরঘাটঃ সম্প্রীতির কালী পুজো। সত্যিই এ যেন এক অন্য ছবি। একদিকে কালী মন্দির অন্যদিকে মসজিদ। সম্প্রীতির অনন্য নজির বালুরঘাটে। আর এই বোল্লা রক্ষাকালীর পুজো ঘিরে দুই সম্প্রদায়ের মানুষরা আনন্দ উৎসবে মেতে উঠেন। শুধু দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা নয় জেলা ছাড়িয়ে ভিন রাজ্য এমনকি ভুটান, নেপাল, বাংলাদেশের লক্ষাধিক মানুষের সমাগম হয় এখানে।

উত্তরবঙ্গে প্রাচীনতম মন্দির গুলির মধ্যে  অন্যতম বোল্লা রক্ষাকালী মাতার মন্দির। দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার সদর শহর বালুরঘাট থেকে প্রায় ২২ কিলোমিটার দক্ষিণে বোল্লা গ্রামে অবস্থিত এই রক্ষাকালী মাতার মন্দির। রাসপূর্ণিমার পর প্রথম শুক্রবারে মায়ের পুজো অনুষ্ঠিত হয়। সোনার গহনা দিয়ে সাজানো হয় মায়ের মৃন্ময়ী মূর্তি। মূল মূর্তি ছাড়াও আরও প্রায় ৫০০ টি ভক্তদের মানত করা কালীমূর্তির পুজো হয় মন্ডপ সংলগ্ন স্থানে। বিশ্বাস মায়ের কাছে মানত করলেই নাকি মা মনস্কামনা পূর্ণ করেন।  প্রায় চারশ বছরেরও বেশী সময় ধরে চলে আসছে এই পুজো।কয়েক হাজার ছাগ বলি হয় এখানে।

bolla-kali5

এই মন্দিরের উল্টোদিকে রয়েছে মসজিদ। মসজিদ রক্ষনাবেক্ষনের দায়িত্ব সামলান হিন্দু সম্প্রদায়ের মানুষরা। আবার  পুজো্র সময় মুসলিম সম্প্রদায়ের মানুষরা হাতে হাত মিলিয়ে পুজোর আয়োজন করেন হিন্দুদের সাথেই।তাই মসজিদের  পাশে কবরস্থানের নাম ‘সম্প্রীতি’।পুজো্ ঘিরে জোরদার করা হয় নিরাপত্তা বাবস্থা। পুজোর চারদিন এই এলাকায় লক্ষাধিক লোকের সমাগম হয়। যাত্রীদের সুবিধার জন্য পুজোর চারদিন কলকাতা ও শিলিগুড়ি থেকে বালুরঘাটগামী সমস্ত ট্রেনকে কৃত্রিম স্টেশন তৈরি করে থামানোর ব্যবস্থা করা হয় বোল্লা এলাকায়।

প্রতি মুহূর্তে ‘হাইলাইস বেঙ্গল’ এর নিউজ আপডেট পেতে আমাদের ফেসবুক পেজ Like  করুন

আপনি কি কবিতা বা গল্প লেখেন? পাঠান আমাদের।হাইলাইস বেঙ্গল এর বিশেষ বিভাগ আপনার লেখাতে প্রকাশিত হবে। আপনার লেখা পৌঁছে যাবে বিশ্বের দরবারে।

আপনার প্রতিষ্ঠানের বিজ্ঞাপনের সেরা মাধ্যম ‘হাইলাইস বেঙ্গল’। ফোনে করুন- ৯৯৩৩১০৬৯০৪, ৭৯০৮০০২২৪৮

bolla-02