পরপর দু’দিন বিস্ফোরণের পর এবার উদ্ধার হল বোমা

গলসি থানা এলাকাতেই পরপর দু’দিন মজুত বোমা বিস্ফোরণ ঘটে। ঠিক তার পরেই এদিন উদ্ধার হলো বোমা।

গলসি ২ নং ব্লকের মসজিদপুর মাঝ পাড়া এলাকায় বোমা উদ্ধার হয়। তিল ক্ষেতে একটি থলির মধ্যে বোমাগুলি রাখা ছিল।

এদিন সকালে গ্রামবাসীরা মাঠে কাজে যাবার সময় ব্যাগটি দেখে সন্দেহ হয়। তারা দেখে ব্যাগে রয়েছে বোমা। সঙ্গে সঙ্গে তারা পুলিশকে খবর দেয়। পুলিশ এসেই বাঁশ ও ত্রিপল দিয়ে আচ্ছাদন তৈরি করে। যাতে সূর্যের উত্তাপে বোমগুলি বিস্ফোরণ না ঘটে । খবর দেওয়া হয় CID বোম্ব স্কোয়াডকে।

এর আগে রবিবার রাত নটা নাগাদ গলসি ১ ব্লকের আটপাড়া গ্রামে বিস্ফোরণের শব্দে এলাকা কেঁপে ওঠে। মজুত বোমা থেকে বিস্ফোরণ ঘটে বলেই স্থানীয়দের প্রাথমিক অনুমান।

এই ঘটনায় পুলিশ যে বাড়িতে বিস্ফোরণ ঘটে সেই বাড়ির মালিক শেখ সফিকে গ্রেপ্তার করে।

মঙ্গলবার সকাল ১১ টা নাগাদ গলসী ১ নম্বর ব্লকের রাইপুর শিশু শিক্ষা কেন্দ্রের পাশেই রফিকুল শেখের নির্মীয়মান বাড়িতে বিস্ফোরণ ঘটে। প্লাস্টিকের জারের মধ্যে থাকা মজুত বোমা বিস্ফোরণ হয় বলে অনুমান। ঘটনার কয়েক ঘন্টার মধ্যেই পুলিশ আলিম মন্ডল ও সুকুর মন্ডল নামে দুজনকে গ্রেপ্তার করে।

আগামী ২২ তারিখ গলসী বিধানসভা নির্বাচন। নির্বাচনের ঠিক আগেই পরপর দুদিন বিস্ফোরণ এবং তারপরই বোমা উদ্ধারের ঘটনায় এলাকার মানুষদের মধ্যে আতঙ্ক সৃষ্টি হয়েছে। স্বাভাবিকভাবেই প্রশ্ন করতে শুরু করেছে এইভাবে বোম কারা মজুত করছে? কিভাবে আসছে? আরো কি বোম রয়েছে এলাকায়?

গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।